রবিবার, ০১ অগাস্ট ২০২১, ১১:০১ অপরাহ্ন১৭ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

২১শে জিলহজ, ১৪৪২ হিজরি

নোটিশ
★সিলেটের বার্তায় প্রতিনিধি/সংবাদদাতা নিয়োগ চলছে। তাই যোগাযোগ করুন নিম্নের মেইল অথবা নাম্বারে।
জগন্নাথপুরে কেনা হলো না টিসিবির পণ্য, খালি হাতে বাড়ি ফেরা

জগন্নাথপুরে কেনা হলো না টিসিবির পণ্য, খালি হাতে বাড়ি ফেরা

টিসিবির পণ্যবাহী ট্রাকের পাশে ক্রেতাদের ভিড়। ধৈর্য্য ধরে লাইনে দাঁড়িয়েও শেষে খালি হাতে বাড়ি ফিরলেন অনেকেই।

সোমবার (২১ জুন) দুপুরে উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গণে টিসিবির পণ্য বিক্রিকালে টিসিবির ট্রাক সেলের সামনে ক্রেতাদের প্রচন্ড ভিড় দেখা গেছে।

বাড়তি পণ্যমূল্যের বাজারে কমে টিসিবির পণ্য কিনতে পেরে খুশি অধিকাংশ মানুষ। তবে চাহিদার তুলনায় পণ্য অপ্রতুল থাকায় অনেকেই খালি হাতে বাড়ি ফিরতে হয়।

কবির রায় বলেন, বাজারে নিত্যপন্যদাম অনেক বেশি। এখানে কিছুটা কম দামে কেনা যাচ্ছে। দীর্ঘক্ষণ লাইনে দাড়িয়ে পন্য কিনতে পেরে এখন ভালো লাগছে। আরেক ক্রেতা নিকেশ বৈদ্য জানান, দুপুর ১২টার দিকে এসে দেখতে পাই ন্যায্যমূল্যের মালামাল বিক্রি শেষ হয়ে গেছে। এখন খালি হাতেই ফিরে যাচ্ছি।

জানা যায়, সারাদেশের ন্যায় গত ১৬ জুন থেকে জগন্নাথপুর উপজেলায় টিসিবির পন্য বিক্রি শুরু হয়। এর মধ্যেই জগন্নাথপুর উপজেলা সদর, মিরপুর ও রানীগঞ্জ বাজারে সরকারি সংস্থা টিসিবির পন্য ক্রয়ে ক্রেতাদের ভীর দেখা গেছে।

টিসিবির ডিলার ধনেশ রায় বলেন, গতকাল উপজেলা সদরে তিন শতাধিক মানুষের নিকট টিসিবির মালামাল বিক্রয় করা হয়েছে। জনপ্রতি এক কেজি চিনি ৫৫ টাকা, এক কেজি মুসরী ডাল ৫৫, চার লিটার সোয়াবিল তৈল ৪০০ টাকা দরে এক প্যাকেট সিটিবির পণ্য বিক্রয় করা হয়েছে। তিনি জানান, এবার প্রথম ধাপে টিবিসির মালামাল বরাদ্দ পাওয়া গেছে এক হাজার লিটার সোয়াবিন তৈল, মুসরী ডাল ৪০০ কেজি ও চেনি ৪০০ কেজি। গতকাল কিছু চিনি ছাড়া অন্যসব পন্য বিক্রি হয়ে গেছে।

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  





Sylheter#Barta@777

©এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব sylheterbarta24.com কর্তৃক সংরক্ষিত