রবিবার, ০১ অগাস্ট ২০২১, ১০:০৫ অপরাহ্ন১৭ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

২১শে জিলহজ, ১৪৪২ হিজরি

নোটিশ
★সিলেটের বার্তায় প্রতিনিধি/সংবাদদাতা নিয়োগ চলছে। তাই যোগাযোগ করুন নিম্নের মেইল অথবা নাম্বারে।
বালাগঞ্জে উদ্যোগ নিলেন এলাকাবাসী, মাটি ভরাট করে দিলেন প্রবাসী

বালাগঞ্জে উদ্যোগ নিলেন এলাকাবাসী, মাটি ভরাট করে দিলেন প্রবাসী

সিলেটের দক্ষিণ সুরমা ও ফেঞ্চুগঞ্জ এই দু’টি উপজেলার সাথে বালাগঞ্জ উপজেলাবাসীর যোগাযোগ সহজকরণের লক্ষ্যে দু’টি সড়কের প্রায় ৬ কিলোমিটার মাটি ভরাটের উদ্যােগ নেন স্থানীয় এলাকাবাসী এবং অর্থ দিয়ে এগিয়ে প্রবাসী।

জানা যায়, মাটি ভরাট সম্পন্ন হলে বালাগঞ্জের বৃহত্তর দুফড়িয়া-চাতল হাওরসহ পাশ্ববর্তী হাওরগুলোর কয়েক হাজার হেক্টর জমির ফসল ও কৃষি উপকরণ নিয়ে চলাচল এবং বহনে কৃষকদের দুর্ভোগ লাঘব হবে।

উপজেলার দেওয়ান বাজার ইউনিয়নের কুকুরাইল টুলবাড়ি থেকে পশ্চিম গৌরীপুর ইউনিয়নের কলুমপুর পর্যন্ত সড়কের দৈর্ঘ ৪ কিলোমিটার এবং কুকুরাইল জামে মসজিদ থেকে ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলার উত্তর কুশিয়ার ইউনিয়নের পাঠানচক (কটালপুর) পর্যন্ত ৬ কিলোমিটার দৈর্ঘের দুটি সড়কে এলাকাবাসীর উদ্যোগে ও প্রবাসীদের আর্থীক সহযোগিতায় ইতিমধ্যে প্রায় ৫০ভাগ মাটি ভরাট সম্পন্ন হয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, এ দুটি সড়কের প্রয়োজনীয়তা উল্লেখ করে স্থানীয় জন প্রতিনিধিসহ সংশ্লিষ্ট সরকারি বিভিন্ন দপ্তরে আবেদন নিবেদন করা হয়। কিন্তু কার্যকরী উদ্যোগ গ্রহণ না করায় দির্ঘ প্রতিক্ষার পর এলাকাবাসী জন দুর্ভোগ লাঘবে সড়ক উন্নয়নের প্রস্তুতি নেন।

স্থানীয় গোয়াসপুর, কুবেরাইল, কুকুরাইল ও পাশ্ববর্তী কয়েকটি গ্রামের প্রতিটি ঘর থেকে চাঁদা উত্তোলন করে মাটি ভরাটের কাজ শুরু করেন। মাটি ভরাট কাজে এলাকার প্রবাসীরা স্বপ্রেণোদিত হয়ে আর্থিক সহায়তার হাত প্রসারিত করেন। এরই ধারাবাহিকতায় সৌদি আরবস্থ সিলেট বিভাগ প্রবাসী পরিষদের সাবেক সভাপতি, বালাগঞ্জ উপজেলার দেওয়ান আব্দুর রহিম হাইস্কুল এ- কলেজের আজীবন দাতা সদস্য, আব্দুল আজিজ মাসুক ফাউ-েশনের প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান বিশিষ্ট সমাজকর্মী আব্দুল আজিজ মাসুক দুটি সড়কের উন্নয়নে ৫০ হাজার টাকা করে ১ লক্ষ টাকা অনুদান দেন।

স্থানীয় বাসিন্দা জাহির আলী, সেবুল মিয়া, আজমল আলী ও আব্দুল খালিক বলেন, দুটি সড়কে মাটি ভরাটের কাজ সম্পন্ন হলে দক্ষিণ সুরমা ও ফেঞ্চুগঞ্জের সাথে যোগাযোগের দ্বার উন্মোচিত হবে। পাশাপাশি বুরো ফসল উৎপাদন ও ফসল ঘরে তোলা সহজ হবে। সড়কে আর্থিক অনুদান প্রদানকারী আব্দুল আজিজ মাসুক ও জুনায়েদ মোহাম্মদ মিয়াসহ প্রবাসীদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে তারা বলেন, সড়কের অসম্পন্ন কাজ সম্পন্ন করতে আমরা প্রবাসী বিত্তবানদের সহযোগিতা কামনা করছি।

স্থানীয় ইউপি সদস্য ইরন মিয়া বলেন, সড়ক উন্নয়নে এলাকার লোকজনের উদ্যোগ সত্যিই প্রশংসনীয়। সরকারি বরাদ্দ না পেলেও তারা বসে থাকেন নি। নিজেরা উদ্যোগী হয়ে সড়কের কাজ শুরু করেছেন। এতে এলাকার প্রবাসীরাও এলাবাসীর পাশে দাঁড়িয়েছেন। তিনিও সড়কের কাজ সম্পন্ন করতে সবার সহযোগিতা কামনা করেন।

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  





Sylheter#Barta@777

©এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব sylheterbarta24.com কর্তৃক সংরক্ষিত