মঙ্গলবার, ১৫ Jun ২০২১, ০২:৩৪ পূর্বাহ্ন১লা আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

৪ঠা জিলকদ, ১৪৪২ হিজরি

নোটিশঃ
★সিলেটের বার্তায় প্রতিনিধি/সংবাদদাতা নিয়োগ চলছে। তাই যোগাযোগ করুন নিম্নের মেইল অথবা নাম্বারে।
করোনায় একমাসের পানির বিল দিতে হবে না নগরবাসীকে

করোনায় একমাসের পানির বিল দিতে হবে না নগরবাসীকে

নিজস্ব প্রতিবেদক:: মরণব্যধি করোনাভাইরাসে থমকে দাঁড়িয়ে আছে জীবনযাত্রা। থেমে আছে জীবীকানির্বাহের সকল মাধ্যম।

এমন পরিস্থিতির মধ্যে সিলেট নগরবাসীকে একমাসের পানির বিল মওকুফের ঘোষণা দিয়েছেন মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী।

বর্তমান দুর্যোগকালীন পরিস্থিতিতে মানবিক দিক বিবেচনায় সিলেটের শ্রমজীবী ও বস্তিবাসী মানুষের পাশে দাঁড়ানোর জন্য নগরীর বস্তির মালিকদের প্রতি আহবান জানিয়েছেন। এছাড়াও নিম্নমধ্যবিত্ত যেসব পরিবার বিভিন্ন বাসাবাড়ীতে ভাড়াটিয়া হিসেবে বসবাস করছেন তাদের একমাসের ভাড়াও মওকুফ করার জন্য বাসাবাড়ীর মালিকদের প্রতি অনুরোধ জানিয়েছেন মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী।

এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে তিনি বস্তির এবং বাসাবাড়ীর মালিকদেরকে ভাড়াটিয়াদের একমাসের ভাড়া মওকুফের অনুরোধ জানিয়ে বলেন, ‘এই মুহুর্তে সবার উচিত নিজ নিজ অবস্থান থেকে গরীব, অসহায় ও দু:স্থ মানুষের পাশে দাঁড়ানো।

আমরা যদি বস্তিবাসী ও নিম্ন মধ্যবিত্ত পরিবারের একমাসের ভাড়া মওকুফ করি তাহলে এই দুর্দিনে কিছুটা হলেও তারা স্বস্তি পাবেন।’ এক্ষেত্রে সিলেট সিটি কর্পোরেশনের পক্ষ থেকে মালিকদের জন্যে সংশ্লিষ্ট মাসের পানির বিল মওকুফেরও ঘোষণা দেন মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী।

ভাড়া মওকুফের পাশাপাশি দারিদ্রপীড়িত শ্রমজীবী নিম্নআয়ের মানুষের জন্যে খাদ্যদ্রব্য দিয়ে সহযোগিতা করার জন্য সিলেটের বিত্তবান ও প্রবাসীদের এগিয়ে আসার আহবান জানান মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী।

মেয়র সমাজের বিত্তবানদের উদ্দেশ্যে বলেন, ‘সিলেট সিটি কর্পোরেশনের একার পক্ষে সবাইকে সহযোগিতা করা সম্ভব নয়, এই বিবেচনায় প্রতিটি ওয়ার্ডের বিত্তশালীরা যদি নিজেদের পাড়া মহল্লায় নিজেদের সামর্থ্য মোতাবেক গরীব প্রতিবেশীদের সহযোগিতা করেন তাহলে সমাজের অসহায় দরিদ্র জনগোষ্ঠীর কষ্ট কিছুটা হলেও লাঘব হবে।’

মেয়র জানান, ‘সিলেট সিটি কর্পোরেশনের পক্ষ থেকে শ্রমজীবী অসহায় মানুষের জন্য খাদ্য ফান্ড গঠনের সিদ্ধান্ত হয়েছে। এই ফান্ডে নিজের একমাসের সম্মানীভাতা প্রদানের সিদ্ধান্তের কথা জানিয়ে মেয়র উল্লেখ করেন, শুধু তিনি একা নন, সিলেট সিটি কর্পোরেশনের বিভিন্ন কাউন্সিলরও তাদের সম্মানীর একটি অংশ প্রদানের প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন।

মেয়র বলেন, ‘সিলেট নগরীর বিত্তবান এবং বিভিন্ন বানিজ্যিক ও সামাজিক প্রতিষ্ঠান সিলেট সিটি কর্পোরেশন গঠিত ‘খাদ্য ফান্ডে’ নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য দিয়ে সহযোগিতা করার জন্য আমি উদাত্ত আহবান জানাচ্ছি। ’ সিলেট সিটি কর্পোরেশনের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বেতনভাতার একটি অংশও এই খাদ্য সহায়তা ফান্ডে প্রদানের জন্যও তিনি তাদের প্রতি আহবান জানান।

কিছুদিন পর পবিত্র মাহে রমজান আসন্ন উল্লেখ করে মেয়র ধর্মপরায়ন মুসল্লীদেরকে তাদের যাকাতের একটি অংশ দিয়েও গরীব ও অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানোর আহবান জানান।

শেয়ার করুন
  •  
  • 3K
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  





Sylheter#Barta@777

©এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি। সকল স্বত্ব sylheterbarta24.com কর্তৃক সংরক্ষিত